আশুলিয়ার সেই আগুনে পুড়ে মারা যাওয়া শিশুটির লাশ দাফন হলো চাঁদা তুলে

 

সাভার প্রতিনিধি ঃঃ
সাভারের আশুলিয়ার সেই আগুনে পুড়ে মারা যাওয়া শিশুটির লাশ দাফন হলো চাঁদা তুলে। এ নিয়ে সোস্যাল এবং সংবাদ মাধ্যমে তোলপাড় চলছে

জানা গেছে, সাভারের আশুলিয়ার ভাদাইল পবনারটেক এলাকায় বৃহস্পতিবার ( ৯ সেপ্টেম্বর) রাতে লাগা আগুনে পুড়ে মারা যায় আঁখি। খাটের নিচে লুকিয়ে পড়লেও মৃত্যু থেকে থেকে রেহাই পায়নি অভাগা শিশুটি। তার সাথে খেলা করা অপর দুই শিশুকে লোকজন উদ্ধার করতে সক্ষম হলেও উদ্ধার করতে পারেনি শিশু অঁখিকে।

বাবা-মা পোষাক শ্রমিক। তাদের আদরের ধন ছিল আঁখিমণি। টাকার অভাবে দাফন সম্পন্ন করতে পারছিলেন না। কেউ এগিয়ে এলো না। না কোন নেতা, না কোন জনপ্রতিনিধি, না কোন ধনকুব। এগিয়ে এলেন এলাকাবাসী। রাস্তায় দাঁড়িয়ে টাকা তুলে পরিবারের হাতে তুলে দেয়ার প্রায় পাঁচ ঘণ্টা পর শিশু আঁখি মণিকে দাফন করেন তার বাবা-মা ও লোকজন।

সাভার উপজেলার নির্বাহী কর্মকর্তা মাজাহারুল ইসলাম সংবাদ মাধ্যমকে বলেন, এ কাজ হচ্ছে মানুষ হিসেবে মানবিক দায়িত্ব। মানুষের সচেতন হওয়া উচিৎ। আমরা এক কঠিন দুঃসময় পার করছি। আখির বাবা-মা অনেক গরিব, আমি তাদের দায়িত্ব নিব।