কার্টুনিস্ট কিশোরের মামলার তদন্ত ভার দেয়া হলো পিবিআইকে

 

স্টাফ রিপোর্টার
কারাগারে নির্যাতন ও হেফাজতে মৃত্যু নিবারণ আইনে করা কার্টুনিস্ট আহমেদ কবির কিশোরের মামলা গ্রহণ করেছেন আদালত। মামলাটি পুলিশ ব্যুরো অব ইনভেস্টিগেশনকে (পিবিআই) তদন্তের নির্দেশ দিয়েছেন আদালত। েরোববার রোববার (১৪ মার্চ) ঢাকার মহানগর দায়রা জজ কে এম ইমরুল কায়েশ এই আদেশ দেন। এই তথ্য জানিয়েছেন ওই আদালতের সরকারি কৌঁসুলি (পিপি) তাপস কুমার পাল। আদেশে ঢাকা মেডিক্যাল কর্তৃপক্ষকে বলা হয়েছে ৩ সদস্য বিশিষ্ট একটি বোর্ড গঠন করে কিশোরের নাক, কান, গলা কতটুকু ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে এবং অন্যান্য জখমের বিষয়ে যথাযথ অনুসন্ধান পূর্বক তিন কার্যদিবসের মধ্যে প্রতিবেদন পিআইবিকে দিতে।

পিবিআই এর একজন এসপি পদ মর্যাদার অফিসারকে অভিযোগের বিষয়ে তদন্ত করে আগামী ১৫ এপ্রিল ২০২১ তারিখে আদালতে তদন্ত প্রতিবেদন দাখিল করতে নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। এর আগে গত ১০ মার্চ ঢাকা মহানগর দায়রা জজ আদালতের বিচারক কে এম ইমরুল কায়েশের আদালতে মামলার আবেদন করেন কার্টুনিস্ট কিশোর। আদালত তার জবানবন্দি গ্রহণ করে নথি পর্যালোচনা শেষে আদেশ আজকের দিনের জন্য রাখেন। অভিযোগে বলা হয়, গত বছরের ৫ মে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে কার্টুনিস্ট আহমেদ কবির কিশোর গ্রেফতার হন। কিন্তু তার তিনদিন আগে ২ মে বিকাল ৫টা ৪৫ মিনিটে বাসা থেকে সাদা পোশাকধারী ১৬/১৭ জন লোক তাকে মুখোশ পরিয়ে হাতকড়া লাগিয়ে নির্জন অচেনা জায়গায় নিয়ে যায়। এরপর ২-৩ মে পর্যন্ত তাকে বিভিন্নভাবে নির্যাতন করা হয়।